ব্রেকিং নিউজ

ঝিরঝিরে বৃষ্টি উপভোগ করতে চান? বেড়াতে যাওয়ার সেরা ঠিকানা আপনার জন্য

সকাল থেকে কখনও ভারী আবার কখনও বা ঝিরঝিরে বৃষ্টি৷ অফিস পৌঁছতে পৌঁছতে কাকভেজা৷ অফিস আর বাড়ি, বাড়ি আর অফিস করে করে আপনি ক্লান্ত৷ বর্ষার মজাটাও ঠিক করে নিতে পারছেন না৷ মন বলছে, কয়েকদিন অফিস থেকে ছুটি নিয়ে দূরে কোথাও পাড়ি দিতে৷ তবে দেরি কীসের? রোজকার জীবনকে গুড বাই করে বাক্স গুছিয়ে বেড়িয়ে পড়ুন৷ বর্ষার মজা নিতে রাজধানীর কাছেপিঠে কয়েকটি জায়গায় ঘুরে আসতে পারেন৷

শিমলা: বৃষ্টি ধোয়া রাস্তা৷ চতুর্দিকে সবুজ গাছের সারি৷ রঙিন ছাতার মেলা৷ এরই মাঝে রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে আপনি৷ হাতে ধোঁয়া ওঠা চায়ের কাপ৷ রোজকার ক্লান্তি এভাবে কাটাতে চাইলে, আপনার ডেস্টিনেশন হতেই পারে শিমলা৷ হলফ করে বলা যায়, বছরের যেকোনও সময়ের তুলনায় বর্ষাতেও অপরূপ চেহারা নেয় এই জায়গা৷

উদয়পুরচতুর্দিকে জলাশয়৷ আর জলাশয় লাগোয়া দুর্গে সাজানো উদয়পুর৷ বর্ষায় ভোল বদলে ফেলে জলাশয়ের শহর৷ দুর্গগুলির কাছাকাছি পৌঁছে যায় জলসীমা৷ বৃষ্টির জলে পা ভিজিয়ে উদয়পুরের দুর্গের অতুলনীয় রূপ আপনাকে মুগ্ধ করতে বাধ্য৷

জয়সলমের: বর্ষায় কোথায় বেড়াতে যাবেন, সেই তালিকায় থাকতে পারে জয়সলমেরের নামও৷ একদিকে ইতিহাসের ফিসফিসানি অন্যদিকে প্রাকৃতিক সৌন্দর্য৷ রোজকার ক্লান্তি ভোলাতে এর চেয়ে ভাল ঠিকানা আর কীই বা হতে পারে? সঙ্গে দেখা মিলতে পারে ময়ূরেরও৷

নাগ্গার: পৃথিবীর সমস্ত ব্যস্ততাকে পিছনে ফেলে, নিজের মধ্যে হারিয়ে যেতে চান? তবে আপনার ডেস্টিনেশন হতেই পারে নাগ্গার৷ পাহাড়, জঙ্গল, পাহাড়ি নদীর মাঝে একলা আপনি৷ ভাবুন তো, কেমন হবে৷ তবে কল্পনাতেই থমকে যাবেন না৷ বরং বর্ষার শেষে বেড়িয়ে পড়ুন নাগ্গারের উদ্দেশ্যে৷

চন্দ্রতাল: বেড়াতে গিয়ে অ্যাডভেঞ্চার চান? তারায় ভরা আকাশ দেখতে দেখতে ঘুমোনোর ইচ্ছা রয়েছে আপনার? তবে দিল্লি থেকে কিছু দূরে বেড়িয়ে আসুন চন্দ্রতালে৷ তাঁবু খাটিয়ে চন্দ্রতালেই কাটাতে পারেন গোটা রাত৷

অমৃতসর: আপনি কিখাদ্যরসিক? রাস্তার আশেপাশে খাবারদাওয়ারই বেশি পছন্দ করেন? সঙ্গে ছবি তোলার শখও আছে? তবে আর দেরি কেন? বেড়িয়ে পড়ুন অমৃতসরের উদ্দেশ্যে৷ স্বর্ণমন্দির ঘুরে আসার কথা ভুলে যাবেন না কিন্তু৷

About editor

One comment

  1. Today, I went to the beach front with my kids. I found a sea shell and gave it to my 4 year old daughter and said “You can hear the ocean if you put this to your ear.” She put the shell to her ear and screamed. There was a hermit crab inside and it pinched her ear. She never wants to go back! LoL I know this is completely off topic but I had to tell someone!

Leave a Reply

Your email address will not be published.

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com