ব্রেকিং নিউজ

ডায়েট না শরীরচর্চা, মেদ ঝরাতে উপকারী কোনটা?

অফিসে বসে কাজ। তাই পরিশ্রম হলেও শারীরিক ক্লেশভোগ তেমন হয় না। তাই ক্রমশ বেড়ে যাচ্ছে ওজন। ডাক্তার বলেছে কমাতে হবে। কিন্তু কীভাবে? অনেকে বলছে ডায়েট করতে, অনেকে পরামর্শ দিচ্ছে শারীরিক কসরতের। কোনটি ভাল? পরামর্শ দিলেন বিশেষজ্ঞরা।

বিশেষজ্ঞদের মতে, ডায়েট বা শরীরচর্চা, দু’ক্ষেত্রেই মেদ ঝরে। তবে ডায়েট করলে ওজন ঝরে কম। জানা গিয়েছে, খাবার সহজপাচ্য হলে ১০ শতাংশ মেদ ঝরে। এখানেই প্রয়োজন ডায়েটের। নির্দিষ্ট কিছু খাবার সহজে হজম হয়ে যায়। যেমন স্ন্যাকসে খেতে পারেন তিন-চারটে আমন্ড, আখরোট, খেজুর। দুপুরে ও রাতে বাড়ির তৈরি হালকা সহজপাচ্য খাবার খান। ভাত বা রুটি যা খেতে আপনি অভ্যস্ত, তাই খান। ওজন বাড়ার প্রবণতা থাকলে ভাতের পরিমাণ কম করুন, একেবারে ছেড়ে দেবেন না। মেনুতে মাছ, চিকেন, ডিম, সয়াবিন, সয়া নাগেটসের মত প্রোটিনযুক্ত খাবার রাখুন। ডিম খেলে ওজন বেড়ে যাবে ভাববেন না। বরং কার্বোহাইড্রেট যুক্ত খাবার যেমন ভাত, রুটি, ময়দা কম খান।

সকালবেলা উঠে একগ্লাস উষ্ণ জলে অর্ধেক লেবুর রস, হাফ চা চামচ মধু মিশিয়ে খান। এতে শরীর থেকে ক্ষতিকারক টক্সিন বেরিয়ে যাবে। দিনে ৭ থেকে ৮ গ্লাস জল খান। গ্রিন টি, ডাবের জল বা দইয়ের ঘোল খেতে পারেন জলের পরিবর্তে। মরশুমি ফল ডায়েটের জন্য সবচেয়ে উপযোগী খাবার। তাই ডায়েট করতে চাইলে এটি অবশ্যই মেনুতে রাখুন।

তবে ডায়েটের চেয়ে শরীরচর্চায় বেশি মেদ ঝরে বলে দাবি বিশেষজ্ঞদের। রোজ শরীরচর্চা করলে প্রায় ৩০ শতাংশ মেদ ঝরে। ওজন ঝরাতে চাইলে, রোজ ৩০ মিনিট হাঁটুন। করতে পারেন ফ্রি-হ্যান্ড এক্সারসাইজ বা যোগব্যায়াম। তবে শরীরের জন্য সবচেয়ে উপকারী সাঁতার। মহিলারা নাচের দিকে ঝুঁকতে পারেন। এটি মেদ ঝরাতে খুব সাহায্য করে। এছাড়া জিমে ওয়ার্ক আউট তো রয়েছেই। গবেষণায় দেখা গিয়েছে, যারা ধীরে ধীরে ওজন ঝরানোর দিতে মন দেন, তারাই ঠিকভাবে মেদ ঝরাতে পারে। তবে ডায়েট বা শরীরচর্চা, যাই শুরু করবেন, ধরে রাখতে হবে।

About editor

Leave a Reply

Your email address will not be published.

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com